সোমবার, ৩০ নভেম্বর ২০২০, ১১:৪৮ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
দানোত্তম শুভ কঠিন চীবর দান ২০২০ এর তালিকা বরণ ও বারণের শিক্ষায় সমুজ্জ্বল শুভ প্রবারণা পূর্ণিমা আগামীকাল প্রবারণা পূর্ণিমা, শুক্রবার থেকে কঠিন চীবর দানোৎসব রামু ট্র্যাজেডির ৮ বছর: বিচার নিয়ে অনিশ্চয়তা প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিনে আন্তর্জাতিক বৌদ্ধ বিহারে প্রার্থনা অনোমা সম্পাদক আশীষ বড়ুয়া আর নেই প্রবারণা পূর্ণিমা উপলক্ষে বাংলাদেশ টেলিভিশন চট্টগ্রাম কেন্দ্রে ধারন হল বিশেষ আলেখ্যানুষ্টান বৌদ্ধ ধর্মকে এগিয়ে নিয়ে যেতে হাত মেলালো ভারত-শ্রীলঙ্কা রাঙ্গামাটিতে থাইল্যান্ড থেকে আনিত দশটি বিহারে  বুদ্ধমূর্তি বিতরণ প্রবারণা পূর্ণিমা উপলক্ষে বাঁশখালী উপজেলা প্রশাসনের সাথে মতবিনিময়
বুদ্ধপূর্ণিমায় বাংলাদেশ ভারতে বৌদ্ধ বিহারে হামলার আশঙ্কা

বুদ্ধপূর্ণিমায় বাংলাদেশ ভারতে বৌদ্ধ বিহারে হামলার আশঙ্কা


নির্বাচনী ব্যস্ততার মধ্যেই জঙ্গিহানার সতর্কতায় উদ্বিগ্ন ভারতীয় প্রশাসন। ভারতের কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থার পক্ষ থেকে দিন দুয়েক আগে রাজ্যকে সতর্ক করা হয়েছে যে, জামাতুল মুজাহিদিন বাংলাদেশের (জেএমবি) মহিলা জঙ্গিরা রবিবার বুদ্ধপূর্ণিমার দিন বাংলাদেশ এবং পশ্চিমবঙ্গের বৌদ্ধ বিহারগুলিতে আত্মঘাতী হামলা চালাতে পারে। একই কায়দায় আইএসের মহিলা জঙ্গিরা রমজান মাসে এ রাজ্যের বিভিন্ন বিহারে ফিদায়েঁ কায়দায় হামলা চালাতে পারে গোয়েন্দাসূত্রে খবর।

শ্রীলঙ্কায় সম্প্রতি ধারাবাহিক বিস্ফোরণে প্রাণ হারিয়েছেন দু’শোরও বেশি মানুষ। হামলার দায় নিয়েছে আইএস। সেই শ্রীলঙ্কায় এবং বাংলাদেশে প্রকাশিত একটি সাপ্তাহিক ট্যাবলয়েডের খবরকে উল্লেখ করে কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থার সতর্কবার্তায় বলা হয়েছে, বাংলাদেশ অথবা পশ্চিমবঙ্গে মহিলা জঙ্গিদের সামনে রেখে নাশকতার ছককে বাস্তবায়িত করা হতে পারে। নির্দিষ্ট ভাবে বলা হয়েছে, ১২ মে বুদ্ধপূর্ণিমার দিন বৌদ্ধ বিহারে অথবা রমজানে মাসে অন্য কোনও বিহারে ভক্ত সেজে ঢুকে হামলা চালানো হতে পারে। এমনকী, নিরাপত্তারক্ষীদের নজর এড়াতে গর্ভবতী মহিলা সেজে পেটের মধ্যে বিস্ফোরক লুকিয়ে মন্দিরে ঢোকার মতো নতুন কৌশল জঙ্গিরা নিতে পারে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করা হয়েছে।
শ্রীলঙ্কার ধারাবাহিক বিস্ফোরণের ক্ষত শুকোতে না-শুকোতেই ‘শীঘ্রই আসছি’ বলে বাংলায় লেখা একটি পোস্টার দিন কয়েক আগে নিজেদের টেলিগ্রাম মেসেজিং অ্যাপে প্রকাশ করেছিল আইএস। তাতে এমনিতেই আতঙ্ক ছড়িয়েছে বাংলায়। তার মধ্যেই কেন্দ্রীয় গোয়েন্দাদের এই সতর্কবার্তা। ফলে এই পরিস্থিতিতে কোনও ভাবে ঝুঁকি নিতে নারাজ রাজ্য প্রশাসন। রাজ্য এবং কলকাতা পুলিশের দুই কর্তা সতর্কবার্তার সত্যতা স্বীকার করে নিয়ে জানিয়েছেন, কলকাতা-সহ রাজ্যের বিভিন্ন বৌদ্ধ মন্দিরে বুদ্ধপূর্ণিমায় যেহেতু প্রচুর ভক্তের সমাগম হয়, তাই সেখানে নিরাপত্তা জোরদার করতে বলা হয়েছে। সুরক্ষা বাড়ানো হচ্ছে অন্যান্য মন্দিরেরও।
বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বীরা যে জেএমবি জঙ্গিদের নিশানায় রয়েছে, সে তথ্য সামনে এসেছিল গত বছরই। ২০১৮ সালের জানুয়ারিতে বুদ্ধগয়ায় দলাই লামার সফর চলাকালীন আইইডি বিস্ফোরণ ঘটায় জামাত জঙ্গি কওসর ও তার দলবল। মায়নামারে রোহিঙ্গাদের উপর হামলার প্রতিশোধ নিতেই ওই হামলা চালানো হয়েছিল। যদিও বড়সড় ক্ষয়ক্ষতি হয়নি।
খাগড়াগড় বিস্ফোরণের ঠিক পরের তদন্তে সামনে এসেছিল এ রাজ্যে জেএমবির মহিলা ব্রিগেডের তথ্য। গ্রেপ্তারও হয় কয়েকজন মহিলা জঙ্গি। শিমুলিয়া, মুকিমনগর মাদ্রাসা-সহ একাধিক জঙ্গি শিবিরে পুরুষদের পাশাপাশি ওই সব মহিলা জঙ্গিদের শারীরিক কসরত এবং মৌলবাদী ভাবধারায় অনুপ্রাণিত করার পাশাপাশি আগ্নেয়াস্ত্র চালানোর প্রশিক্ষণও দেওয়া হত। তবে গোয়েন্দাদের একটি অংশের বক্তব্য, সাধারণত জেএমবি-র পুরোনো সদস্যরা আত্মঘাতী হামলাকে সমর্থন করে না এবং তাদের দলে এখন মহিলা জঙ্গির সংখ্যাও কম। কিন্তু আইএস ভাবধারায় অনুপ্রাণিত ‘নিও’ জেএমবি বা আইএস জঙ্গিদের এমন ছকের সম্ভাবনা উড়িয়ে দেওয়া যায় না।

Facebook Comments

শেয়ার করুন


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *





© All rights reserved © 2018 tathagataonline.net
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com
error: কপি করার চেষ্ঠা না করে নিজের সুপ্ত প্রতিভার বিকাশ করুন
Don`t copy text!